বয়স বাড়লেও চেহারায় বয়সের ছাপ পড়বে না এই ৪টি খাবার খেলে!

বর্তমান যুগের মানুষ বেশি স্বাস্থ্য ও রূপ সচেতন। তারপরও দূষিত পরিবেশ ও নানা অনিয়মের কারণে আমরা বুড়িয়ে যাচ্ছি। বয়স ধরে রাখা না গেলেও কিন্তু চেহারার বয়স ঠিক রাখতে পারবেন। কিন্তু সেটি কিভাবে? মুখে বয়সের ছাপ দূর করতে সম্প্রতি এক গবেষণায় বেশ কিছু খাবারের নাম উঠে এসেছে। যে খাবারগুলো প্রতিদিন ডায়েটে রাখলে চেহারায় বয়সের ছাপ দীর্ঘদিন পড়বে না। চলুন তাহলে দেখে নেওয়া যাক চেহারায় লাবণ্য আনার চারটি কার্যকর খাবার-

১। টক দই বয়স পঁয়ত্রিশ পেরোলেই হাড় দুর্বল হতে থাকে। এতে বাত বা অস্টিওপরেসিসের মতো সমস্যা দেখা দেয়। হাড়ের সমস্যা সমাধানে সব থেকে কার্যকর উপাদান হচ্ছে ক্যালসিয়াম। টক দইয়ে প্রচুর পরিমাণে ক্যালসিয়াম উপস্থিত। প্রতিদিন ডায়েটে এক বাটি টক দই হাড় সুস্থ রাখতে সহায়তা করে।

২।বাদাম শরীর ও ত্বকের স্বাস্থ্যের জন্য বাদাম খুবই উপকারী একটি উপাদান। বাদামের মধ্যে প্রচুর পরিমাণ আনস্যাচুরেটেড ফ্যাট, ভিটামিন, খনিজ, ফাইটোকেমিক্যাল ও অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট থাকে। তাই রোজ ঘুম থেকে উঠে ৩-৪টি কাজু বাদাম ও বিকেলে এক মুঠো চিনা বাদাম খুবই উপকারি। এ ছাড়া বাদাম বেটে ফেসিয়াল বা বাদাম তেল দিয়ে চুলে ব্যবহার করলে ত্বক ও চুলের স্বাস্থ্য ভাল থাকবে।

৩।চকোলেট প্রতিদিন ডায়েটে চকোলেট,কোকো বা চকোলেট জাতীয় কিছু খেতে পারলে উচ্চ রক্তচাপ, কিডনির সমস্যা এমনকি ডিমেনশিয়ার মতো রোগ প্রতিরোধ করে। শরীরে রক্ত চলাচল স্বাভাবিক রাখতেও চকোলেট খুব কার্যকরি ভূমিকা রাখে। ত্বকের বলিরেখা দূর করতেও চকোলেটের ফেশিয়াল খুব উপকারি। এক কথায় চকোলেট আপনার চেহারায় বয়সের ছাপ পড়তে দেবে না।

৪।মাছ-মাছের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড উপস্থিত, যা স্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত উপকারী। প্রতিদিন ডায়েটে মাছ থাকলে বয়সকালে চোখে ছানি পড়ার সম্ভাবনা অনেকটাই কমে যায়। এ ছাড়া মাছের তেল হার্ট ভাল রাখে ও রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণও নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*